• শিরোনাম

    সিনহা হত্যায় প্রদীপ-লিয়াকতসহ সাত পুলিশ বরখাস্ত

    | ০৮ আগস্ট ২০২০ | ৯:৩৫ পূর্বাহ্ণ | পড়া হয়েছে 252 বার

    সিনহা হত্যায় প্রদীপ-লিয়াকতসহ সাত পুলিশ বরখাস্ত

    সাবেক সেনা কর্মকর্তা মেজর সিনহা মো. রাশেদ খান হত্যা মামলার ঘটনায় টেকনাফ থানা থেকে প্রত্যাহার ওসি প্রদীপ কুমার দাশ ও বাহারছড়া পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের ইন্সপেক্টর লিয়াকত আলীসহ সাত পুলিশ সদস্যকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

    শুক্রবার রাতে গণমাধ্যমকে এই তথ্য জানান কক্সবাজারের পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেন। এর মধ্যে মামলার আসামি ওসি প্রদীপ কুমার দাশ ও পরিদর্শক লিয়াকত আলীকে পুলিশ সদরদপ্তর থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে। আর আসামি এসআই নন্দলাল রক্ষিত, কনস্টেবল সাফানুর করিম, কনস্টেবল কামাল হোসেন, কনস্টেবল আবদুল্লাহ আল মামুন ও এএসআই লিটন মিয়াকে বরখাস্ত করেছেন পুলিশ সুপার।



    গত ৩১ জুলাই রাতে কক্সবাজার-টেকনাফ মেরিন ড্রাইভ সড়কে টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মো. রাশেদ খান। তার ওপর গুলি চালান বাহারছড়া ফাঁড়ির দায়িত্বরত পুলিশ ইন্সপেক্টর লিয়াকত। এই ঘটনায় বাহারছড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর লিয়াকত আলীসহ ২০ জনকে প্রত্যাহার করা হয়। সিনহার বোনের দায়ের করা মামলায় টেকনাফের সাবেক ওসি প্রদীপ কুমারসহ নয়জনকে আসামি করা হয়েছে। ইতিমধ্যে ওসি প্রদীপসহ আত্মসমর্পণ করে সাতজন গতকাল বৃহস্পতিবার কারাগারে গেছেন। এর মধ্যে তিনজনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছে আদালত। মামলাটি তদন্ত করছে র‌্যাব।

    দেশ-বিদেশে আলোড়ন সৃষ্টি করা এই ঘটনাটি গুরুত্বের সঙ্গে নিয়েছে সরকার। পেশাদার দুটি বাহিনীর মধ্যে পারস্পরিক কোনো ভুল বোঝাবুঝি যেন সৃষ্টি না হয় সে ব্যাপারে লক্ষ্য রাখছে কর্তৃপক্ষ। ইতিমধ্যে সেনাপ্রধান ও আইজিপি কক্সবাজার সফর করে জানিয়েছেন, এই ঘটনার দায় পুরো পুলিশ বাহিনীর ওপর নয়, ব্যক্তিবিশেষের। এ ধরনের ঘটনা এটাই শেষ, ভবিষ্যতে আর হবে না বলে পুলিশের পক্ষ থেকে সেনাবাহিনীকে আশ্বস্ত করা হয়েছে।

    স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল শুক্রবার জানিয়েছেন, এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত কেউই ছাড় পাবে না। তদন্তের পর যারাই দোষী প্রমাণিত হবে সবাই বিচারের মুখোমুখি হবেন।

    প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সিনহা রাশেদের মাকে ফোন করে এই ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত এবং বিচারের আশ্বাস দিয়েছেন। এছাড়া উচ্চ পর্যায়ের একটি তদন্ত কমিটি ঘটনাটি তদন্ত করছে।

    Facebook Comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০

    ০৯ এপ্রিল ২০২০

    ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দশদিক

  • %d bloggers like this: